প্রেমিক/প্রেমিকাকে মানুষকে বশ করে রাখার উপায়

প্রেমের বা মনের মানুষকে বশ করে রাখার উপায়ঃ

বিবরণঃ- আপনার মন হয়তো কারোর মনের উপর সারাক্ষণ সাড়া দিচ্ছে, হয়তো কারোর দিকে আপনি নিজেই আকৃষ্ট হয়ে পড়েছেন। কাউকে পাওয়ার আশায় আপনার মন পাগল হয়ে পড়েছে। মনের মানুষটিকে না পেলে হয়তো আপনি মরেই যাবেন, সারক্ষণ এররকম চিন্তা আপনার মাথায় বাসা বাঁধছে। অনেক সময় দেখা যায় আপনি যাকে ভালবাসেন সে আপনার আশেপাশেই সারাক্ষণ রয়েছে কিন্তু তাকে বলার মতো কোন উপায় বা ভাষা নেই জানা। তাই সেই সময় গুলো কাজে লাগাতে না পারলেই বিপদ। যদি আপনি সঠিক সময়ের কাজ সঠিক অবস্থানে করতে না পারেন তাহলে সেই কাজটি পরবর্তি সময়ে করতে খুব কঠিন হয়ে যায়। তাই প্রেমিকা/প্রেমিকদের উচিৎ মনের কথাটি নিজের ভালবাসাকে মন থেকে বলে দেয়া। তাহলে এর সঠিক উত্তর পাওয়া যায়, তানাহলে দেখা যাবে যে, পরবর্তি সময়ে সেই মনের কথটি তাকে বললে বা জানালে কোন রেজাল্ট পাওয়া মুশকিল হয়ে যাবে। কারণ আপনার মনের মানুষটি তার মন হয়তো অন্য কাউকে দিয়ে বসেছে। তখন তারও আর তেমন কিছু করার থাকবে না আপনার জন। আবার অনেক সময় দেখা যায় আপনি যাকে ভালোবাসেন সেও আপনাকে ভালোবাসে তবে, কেন জানি মাঝে মাঝেই সে আপনার কথার গুরুত্ব দেয় না। আপনি তাকে যে সময় কাছে পেতে চাইবেন ঠিক সে সময় তার বিভিন্ন কাজ সামনে এসে হাজির হয়, এই রকম কথা তার মুখ থেকে জানা যায়। অথচ আপনি তাকে প্রাণ ভরে ভালোবাসেন। তার জন্য আপনি আপনার ‍জিবনকে উৎসর্গ করে দিতেও রাজি আছেন। আবার কয়েক দিন পর দেখা যাবে যে, সে ঠিক ঠাক মতোই আপনার সাথে কথা বলা, ঠিক মতো সময় দেয়া, দেখা করা এবং যাবতীয় আপনার প্রয়োজনগুলি সে মিটাচ্ছে। কিন্তু মাঝে মাঝেই যেন সে কেমন হয়ে যায়। আপনাকে সে ঠিক মতো পাত্তাই দেয় না। কিছু দিন পর আপনি জানতে পারলেন যে, সে আর একজনের সাথে কথা বলে, দেখা করে, তাকে ঠিক মতো সময় দেয়। তাই সে আপনার সাথে এরকম করে। এখন আপনি পড়ে যাবেন বিপাকে। এখন সমস্ত আকাশ যেন আপনার মাথায় ভেঙ্গে পড়ছে এমন অবস্থায় আপনি আর কোন উপায় খুঁজে না পেয়ে তাকে অনেক গালাগালি করে ছেড়ে দেন কিংবা তাকে কোনরকম চেষ্টা করেন যে, তুমি ফিরে আসো, কিন্তু সে আর কোন সাড়া দেয়না আপনার ডাকে। এই রকম পরিস্থিতিতে আমাদের লজ্জাতুন নেছার পক্ষ্য থেকে একটি সার্ভিস আপনারা গ্রহণ করুন ও আপনার প্রেম ভালবাসাকে চিরদিনের জন্য গভীর ভালবাসায় পরিনত করুন। আপনার সাথে যখন দেখবেন যে, আপনার প্রেমিক/প্রেমিকা এরকম করছে, ঠিক মতো সময় দিচ্ছে না, আপনাকে মুখে মুখে বলছে তোমাকে অনেক ভালবাসি কিন্তু মন থেকে বলছে অন্যটা। তবে ঠিক এই রকম অবস্থায় আপনি তাকে বশিকরণ করুন যেন, সে আর অন্য কারোর দিকে লোভ বা চোখ না দেয়। শুধুই আপনাকে ভালোবাসে। বশিকরণের জন্য নিচের তদবীরটি প্রয়োগ করুন।

প্রয়োগ বিধিঃ-কাহারো ভালবাসা ও মহব্বত পাইতে চাইলে অযু সহকারে নিম্নলিখিত নকশাটি দুইখানা কাগজে লিখবে। একখানা দ্বারা তাবীজ বানিয়ে হাতের বাহুতে ধারণ করবে। আর একখানা ধৌত করে বাঞ্ছিত ব্যক্তিকে সেই পানি পান করাবে। উদ্দেশ্য পূরন হলে হযরত আব্দুল কাদির জিলানীর রুহে ছওয়াব বখশীশের নিয়াতে ১২৫ টাকার মিষ্টি ক্রয় করে গরীব মিস্‌কিন্‌দের মধ্যে বিতরণ করবে।

নকশাটি এইঃ-

ভালবাসা ও মহব্বত সৃষ্টির জন্য নিম্ন লিখিত তাবিজটি খুব ফলপ্রদ এ তাবিজটি রবিবার দিন লিখে আগুনে জ্বালাবে। আল্লাহ্র রহমতে প্রেমষ্পদ মহব্বতে অধীর হয়ে পড়বে। সাবধান খারাপ উদ্দেশ্যে ব্যবহার করলে চরম ক্ষতি হতে পারে।

 তাবিজটি এইঃ-

বিঃদ্রঃ- উক্ত তাবিজ ও নকশা ব্যবহারের পূর্বে আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন। তারকারণ এই প্রয়োগ টি করতে হলে আপনাকে অনুমতি গ্রহণ করতে হবে। আর অনুমতির জন্য আপনাকে অবশ্যই হাদিয়া প্রদান করতে হবে। অন্যথায় কাজ করিলে কোন ফলাফল আশা করা উচিত নয়। ধন্যবাদ।।