প্রেমিক বশীকরণ টোটকা

প্রেমিক বশীকরণ টোটকা প্রয়োগ করে প্রেমিক কে বশীভূত করুনঃ

লজ্জাতুন নেছা.কম এর পক্ষ্য থেকে আপনাদের সবাইকে জানাচ্ছি আন্তরিক শুভেচ্ছা এবং অভিনন্দন। প্রতিবারের মতো এবারও আমরা আরও একটি নতুন বিষয় নিয়ে আপনাদের সামনে উপস্থিত হয়েছি, আমাদের আজকের নতুন বিষয় প্রেমিক বশীকরণ টোটকা। আজ আমরা আপনাদের সামনে যে টোটকা উপস্থাপন করছি এই টোটকা 200 বছরের পুরাতন কোকা পন্ডিতের লজ্জাতুন্নেছা থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে।  যদি কোন প্রেমিকা তার প্রেমিককে তার বশীভূত করতে চায় তাহলে এই টোটকা  টি প্রয়োগ করতে পারবেন।  কোন প্রেমিকা যদি কোন প্রেমিককে পছন্দ করে তার মনের কথা বলতে না পারে সে যদি অনেক কঠিন মনের মানুষ হয়ে থাকে তাহলে এই টোটকা প্রয়োগ করে সে তাকে তার জীবন সঙ্গী হিসেবে নিতে পারবে।  আপনি কখনই এই ধরনের টোটকা খারাপ কোন কাজের উদ্দেশ্যে ব্যবহার করতে যাবেন না।  আপনি যদি এই টোটকা প্রয়োগ করতে চান তাহলে আমরা এখানে যে সমস্ত নিয়মকানুনের কথা আপনাদের সামনে তুলে ধরবো সেগুলো আপনি সঠিকভাবে প্রয়োগ করুন তাহলে আপনি সম্পূর্ণরূপে ফলাফল ভোগ করতে পারবেন।  তাহলে চলুন প্রেমিক বশীকরণ টোটকা সম্পর্কে যাবতীয় বিষয় জেনে নেয়া যাক-

উপকরণ সমূহ:  আপনি যদি এই টোটকা প্রয়োগ করতে চান তাহলে আপনাকে কিছু প্রয়োজনীয় উপকরণ সংগ্রহ করতে হবে চলুন সে সম্পর্কে যাবতীয় বিষয় জেনে নেয়া যাক-  মাছের পিত্ত,  গোরচনা।

প্রয়োগ বিধি:  আপনি যদি এই টোটকা প্রয়োগ করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে প্রয়োজনীয় উপকরণ গুলো সংগ্রহ করে নিতে হবে।  তারপর আপনি নিজে পাক-পবিত্র হয়ে মাছের পিত্ত ও গোরচনা পিষে নিতে হবে। তারপর কোন ভাবে সেই মিশ্রণ গুলো সামান্য পরিমাণ আপনার মন পছন্দের মানুষটির গায়ে লাগিয়ে দিতে হবে তবে বেশ ভালো হয় যদি তার মাথায় বা কপালে লাগিয়ে দিতে পারেন।  ঠিক একই পদ্ধতিতে কোন স্ত্রী যদি তার স্বামীকে এইভাবে তিলক লাগায় দিতে পারে তাহলে সে তার স্বামীকে বশ করতে পারবে।

বিঃদ্রঃ- উপরোক্ত টোটকাটি প্রয়োগের পূর্বে অবশ্যই কোন গুরুর অনুমতি গ্রহণ করতে হবে।

প্রেমিককে বশ করার আরো তন্ত্র মন্ত্র যন্ত্র দোয়া তাবিজ গুলো দেখতে চাইলে নিচের লিংকে টাচ্ করুন। ধন্যবাদ।

—ক্লিক করুন—